শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের পাশে তামাক বিক্রি বন্ধে মানববন্ধন

আগের সংবাদ

নরসিংদীতে মাইক্রোবাসে শ্রমিককে গণধর্ষনের ঘটনায় গ্রেপ্তার ৩

পরের সংবাদ

মনোহরদীতে সেচ্ছাসেবক দলের অনুষ্ঠানে হামলায় সাংবাদিকসহ আহত ১০

জেলা প্রতিনিধি

প্রকাশিত: আগস্ট ১৯, ২০২১ , ৬:১২ অপরাহ্ণ

নরসিংদীর মনোহরদীতে সেচ্ছাসেবক দলের করোনা রোগীদের চিকিৎসায় হেল্প সেন্টার উদ্ধোধন অনুষ্ঠানে হামলার অভিযোগ উঠেছে। এসময় সাংবাদিক সহ ১০ জন আহত হয়েছে। বুধবার দুপুরে মনোহরদী বাসস্ট্যান্ডে কাশবন রেস্টুরেন্টে এ হামলার ঘটনা ঘটে।

স্বেচ্ছাসেবক দলের নেতাকর্মীদের অভিযোগ ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা এ হামলা চালিয়েছে। তবে ছাত্রলীগ নেতারা অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, বিএনপির অভ্যন্তরীণ কোন্দলের জের ধরে দুই পক্ষের সংঘর্ষ হয়েছে।

কেন্দ্রীয় স্বেচ্ছাসেবক দলের সাধারন সম্পাদক আব্দুল কাদির ভূইয়া জুয়েল বলেন, মনোহরদীতে স্বেচ্ছাসেবক দলের করোনা কালীন সময়ে মাক্স, হ্যান্ড স্যানিটাইজার প্রদান সহ করোনা রোগীদের চিকিৎসায় হেল্প সেন্টার উদ্ধোধন করার অনুষ্ঠান চলছিলো। অনুষ্ঠান চলা কালে হঠাৎ ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা লাঠি শোটা নিয়ে অনুষ্ঠানে হামলা চালায়। এতে প্রতিপক্ষের হামলায় নরসিংদী সেচ্ছাসেবকদলের সভাপতি ভিপি নাসির , চ্যানের আই এর নরসিংদী প্রতিনিধি সুমন রায় ও যমুনা টেলিভিশনের ক্যামেরা পার্সন ইসমাইল মিয়াসহ সেচ্ছাসেবকদলের ১০ নেতাকর্মী আহত হয়েছে।

এসময় জেলা সেচ্ছাসেবকদলের সাধারন সম্পাদক শাহারিয়ার সামস কেনিডির গাড়ী ভাংচুর করা হয়।

তিনি আরো বলেন, মহামারিতে করোনা রোগীদের সহায়তায় মানবিক কাজ করতেও বাধা দিচ্ছে এই সরকার। আমার হামলার ঘটনার তীব্র নিন্দা ও দোষীদের বিচার চাই।

এদিকে হামলার অভিযোগ অস্বীকার করে মনোহরদী উপজেলা ছাত্রলীগের যুগ্ন আহবায়ক নাজমুল কবীর বলেন, বিএনপির নেতাকর্মীদের অভ্যন্তরীন কোন্দলের জের ধরেই দুই পক্ষের সংঘর্ষ হয়েছে। এই ঘটনার সাথে উপজেলা ছাত্রলীগের কোন নেতাকর্মী জড়িত নয়।

মনোহরদী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আনিচুর রহমান বলেন, স্বেচ্ছাসেবক দলের আয়োজন সম্পর্কে পুলিশ অবগত ছিল না। এ ঘটনায় এখনো কোন অভিযোগ পাইনি। ঘটনার সম্পর্কে বিস্তারিত জেনে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।